ফেসবুকে ফলো করুন

শইলডায় জং ধরতে নিছিলো, মাঠে নামার জন্য বিএনপিকে ধন্যবাদ: জনৈক পুলিশের লাঠি

সেদিন সকালে প্রেস ক্লাবে ঘটে গেছে এক আশ্চর্য ঘটনা। লাঠি হাতে প্রেস ক্লাবের সামনে দাঁড়িয়ে ছিলেন একজন পুলিশ। ঠিক সেই মুহূর্তে বিএনপির নেতাকর্মীদের জড় হতে দেখে হঠাৎ খুশিতে বাকশক্তি অর্জন করে সেই পুলিশের হাতে থাকা লাঠি। নিজের অজান্তেই লাঠিটি বিএনপি কর্মীদের ধন্যবাদ দিয়ে ফেলে।

হঠাৎ পাওয়া বাকশক্তির আনন্দে হাজি সেলিমের মত উচ্ছ্বাস প্রকাশ করে কয়েকবার অস্পষ্ট উচ্চারণে 'ধানের শীষ, ধানের শীষ' রব তুলে লাঠিটি বলে, 'কতদিন পর খেলবো। গোডাউনে পড়ে থাকতে থাকতে শইলডায় জং ধইরা যাইতেছিলো। হালকা ফ্যাটও বাড়ছিলো। ভুড়ির অবস্থা এমন হইছিলো, আর কিছুদিন এমনে বেকার শুয়ে বসে থাকলে আমারটার সাইজ আমার অপারেটরের সাইজ সমান হইয়া যাইতো। এভাবে অনেকদিন পর ওয়ার্ক আউটের সুযোগ করে দেয়ার জন্য বিএনপিকে ধন্যবাদ।'

বিএনপিকে মাঝে মাঝে এভাবে মাঠে নামার অনুরোধ করে লাঠিটি বলেন, 'আপনারা মাঠে নামলে তিনটা উপকার। আমাদের ব্যায়াম হয়, দেশে যে মানুষ এখনো আন্দোলন করতে পারে সেটাও প্রমাণ হয়। এরপর আপনাদেরকে লাঠিপেটা করে দেশের উঁচানিচা রাজনৈতিক মাঠকে সমান করে লেভেল প্লেয়িং ফিল্ড তৈরি করা যায়। আন্তর্জাতিক মহলে দেশের সুনামও অর্জন হয়। আর পেটায়া দক্ষতা দেখাতে পারলে যে আমাদের প্রমোশন হয় সেটা না হয় নাই বললাম।'

লম্বা বিরতির পর এমন সুযোগ পাওয়ায় নিয়ন্ত্রণ না হারিয়ে কিছুটা সচেতন থাকার অনুরোধ করে অন্য এক লাঠি বলেন, 'আমাদের অপারেটররা মাঝে মাঝে নিয়ন্ত্রণ হারিয়ে জায়গা বেজায়গায় বাড়ি দেয়। আমাদের সুস্থতার স্বার্থে এটাকে নিয়ন্ত্রণ করতে হবে। আজকে একজনের হাঁটুতে আঘাত করতে গিয়া আমারই হাঁটু মচকাইয়া গেছে, এত শক্ত।'

এদিকে বিএনপি ধন্যবাদ দেয়ায় চাকরি হারানোর শঙ্কায় ধন্যবাদ ফিরিয়ে নিয়ে জনৈক লাঠি বলেন, 'আবেগে দিয়া লাইছি। আমগো পেশায় আবেগের স্থান নাই।'

0 Comment "শইলডায় জং ধরতে নিছিলো, মাঠে নামার জন্য বিএনপিকে ধন্যবাদ: জনৈক পুলিশের লাঠি"

একটি মন্তব্য পোস্ট করুন

Article Top Ads

Ad Middle Article 1

Ad Middle Article 2

Ads Under Articles